বিএনপি নয় বছরে ৯ মিনিটও আন্দোলন করতে পারেনি: সেতুমন্ত্রী

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি ১৮:১৬ , মার্চ ১৪ , ২০১৮

টাঙ্গাইলে কর্মী সভায় বক্তব্য রাখছেন সেতুমন্ত্রী

দেখতে দেখতে নয় বছর, আন্দোলন হবে কোন বছর? বিএনপির উদ্দেশ্যে এ প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন,‘গত নয় বছরে ৯ মিনিটও আন্দোলনে নামতে পারেনি বিএনপি। কারণ জনগণ বিএনপির ডাকে সাড়া দেয়নি। আত্মঘাতী, সাম্প্রদায়িকতা ও নেতিবাচক রাজনীতির কারণেই বিএনপি দেউলিয়া হয়েছে। আওয়ামী লীগ বিএনপিকে দেউলিয়া করেনি। বিএনপি নেত্রী দুর্নীতির দায়ে দণ্ডিত হয়েছেন। আওয়ামী লীগ তাকে জেলে পাঠায়নি।’ বুধবার (১৪ মার্চ) দুপুরে টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত কর্মী সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।  টাঙ্গাইল পৌর স্মৃতি উদ্যানে এ কর্মী সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপিকে অংশ নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন,‘আসুন, শক্তি পরীক্ষা করে দেখুন। মানুষ পুড়িয়ে মারা দলকে এ দেশের জনগণ ক্ষমতায় চায় না। বিএনপির কার্যক্রম প্রমাণ করেছে তারা জঙ্গিবাদের পৃষ্ঠপোষক। ’

কর্মীদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘কর্মীরা বাঁচলেও আওয়ামী লীগ বাঁচবে। কারণ কর্মীরা আওয়ামী লীগের প্রাণ। কর্মীদের ত্যাগের কারণে দল শক্তিশালী অবস্থানে রয়েছে। যে কোনও ভাবেই  নেতাকর্মীদের মধ্যে ঐক্য থাকতে হবে। আওয়ামী লীগকে আরও শক্তিশালী করতে হলে ঘরে ঘরে গিয়ে নারী ও তরুণ ভোটারদের সদস্য সংগ্রহ করতে হবে।’

মনোনয়নের ব্যপারে বিভ্রান্তি না ছড়ানোর আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘মনোনয়নের ব্যাপারে এখনো দলীয়ভাবে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। ব্যানার, বিলবোর্ড ও পোস্টার লাগালেই মনোনয়ন পাওয়া যায় না।

কর্মী সংগ্রহে সতর্ক থাকার নির্দেশ দিয়ে তিনি বলেন, ‘চিহ্ণিত সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, মাদকাশক্ত ও স্বাধীনতা বিরোধীরা আওয়ামী লীগের সদস্য হতে পারবে না। নেতা বা এমপি বানানো এমনকি দল ভারি করার জন্যও এদের প্রয়োজন নেই। দলের স্বচ্ছতার জন্য চাই ভদ্র লোক।’

ঈদের আগেই ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের ৫০ কিলোমিটার রাস্তার  চার লেনের কাজ শেষ করার আশ্বাস দিয়ে তিনি বলেন,‘৬০টি কালভাট, ২৬টির মধ্যে ২৪টি ব্রিজের কাজ সম্পন্ন এবং তিনটি ফ্লাইওভারের ৭০ ভাগ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। ঈদের আগে এ সড়ক যানজট মুক্ত থাকবে। আগামী নির্বাচনের আগে টাঙ্গাইলে শতভাগ বিদ্যুতায়নেরও আশ্বান দেন তিনি।

এসময় তিনি নেপালে বিমান দুর্ঘটনায় ২৬ বাংলাদেশি নিহতের ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করেন ও তাদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান ।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলুর রহমান খান ফারুকের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন, আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি, যুগ্ম- সাধারণ সম্পাদক ডা. দীপু মণি এমপি, শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক শামসুন্নাহার চাঁপা, তথ্য প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট তারানা হালিম এমপি, টাঙ্গাইল সদর আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ ছানোয়ার হোসেন প্রমুখ।

আরও পড়ুন: একরাম হত্যায় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ১৭ জন ধরাছোঁয়ার বাইরে

 

 

/জেবি/

x