অতিরিক্ত বোঝাইর কারণেই ডুবেছে কয়লাসহ কার্গো: বন বিভাগ

খুলনা প্রতিনিধি ০৪:৫৫ , এপ্রিল ১৭ , ২০১৮

সুন্দরবনের অভ্যন্তরের নদী দিয়ে অতিরিক্ত কয়লাবোঝাই ও বহনের কারণে লাইটার কার্গো এমভি বিলাস ডুবির ঘটনা ঘটেছে। মোংলা থানায় দায়ের করা একটি সাধারণ ডায়েরিতে (জিডি) এ তথ্য উল্লেখ করেছেন সুন্দরবনের চাঁদপাই স্টেশন কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম। গত রবিবার রাতে জিডিটি করা হয়।

ডুবে যাওয়া কার্গোএছাড়া রবিবার দুপুরে কয়লার মালিক পক্ষে চট্রগ্রামের সাহারা এন্টারপ্রাইজের অপারেশন ম্যানেজার লালন হাওলাদার মোংলা থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন। জিডিতে তিনি দাবি করেছেন, দুর্ঘটনায় কোম্পানির ১ কোটি ১৬ লাখ ২৫ হাজার টাকা ক্ষতি হয়েছে। একই সঙ্গে ডুবে যাওয়া লাইটার কার্গোর মাস্টার ফরিদ মিয়া দুর্ঘটনার কারণ উল্লেখ করে মোংলা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন।

সোমবার দুপুরে সুন্দরবন বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো. মাহমুদ হাসান ও খুলনা পরিবেশ অধিদফতরের উপ-পরিচালক মো. ইকবাল হোসেনের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এ সময় পরিবেশ অধিদফতরের দলটি ঘটনাস্থল থেকে নদীর পানি সংগ্রহ করেন। এ পানিতে জলজ প্রাণির জন্য ক্ষতিকর কোনও পদার্থ ও রাসায়নিক আছে কিনা তা খতিয়ে দেখবে প্রতিনিধি দলটি। 

আরও পড়ুন: ডুবে যাওয়া কার্গো উদ্ধারে আসছে দুই উদ্ধারকারী জাহাজ, পানির নমুনা সংগ্রহ

তবে এখনও মোংলা বন্দরের পশুর চ্যানেলের হারবাড়িয়া এলাকায় ডুবে যাওয়া কয়লাবোঝাই লাইটার জাহাজ এমভি বিলাসের উদ্ধার কাজ শুরু করা সম্ভব হয়নি। চ্যানেলে নৌযান চলাচল নিরাপদ রাখতে সোমবার সকাল থেকে লাইটার মালিক পক্ষের উদ্যোগে দুর্ঘটনাস্থল মার্ক করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত রোববার ভোর রাতে ৭৭৫ মেট্রিক টন কয়লা নিয়ে মাদার ভ্যাসেল থেকে ছেড়ে আসার পথে হারবাড়িয়ার ৬নং বয়ার অদূরে এমভি বিলাস নামে লাইটার জাহাজটি ডুবোচরে আটকে ডুবে যায়।

/এমও/চেক-এমওএফ/

x