ধুনট বেইলি সেতু পাটাতন দেবে যাওয়ার পরও ঝুঁকি নিয়ে চলছে যান

বগুড়া প্রতিনিধি ১৯:৩৯ , মে ১৭ , ২০১৮

দেবে যাওয়া পাটাতন (ছবি- প্রতিনিধি)

বগুড়ার ধুনট পৌর এলাকার পশ্চিম ভরনশাহী বেইলি সেতুটি ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। সেতুটির পাটাতন (স্টিল) দেবে গেছে। যেকোনও মুহূর্তে তা ভেঙে বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কা করা হচ্ছে। এর পরও ঝুঁকি নিয়ে সেতুটির ওপর দিয়ে বিভিন্ন ধরনের যান চলাচল অব্যাহত রয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সড়ক ও জনপথ বিভাগ ১৯৯২ সালে ধুনট-শেরপুর সড়কের পশ্চিম ভরনশাহী এলাকায় একটি, মাঠপাড়ায় একটি, শেরপুর উপজেলার শালফা এলাকায় দু’টি ও শুবলি এলাকায় একটি বেইলি সেতু নির্মাণ করে। বর্তমানে ওই পাঁচ সেতুই ঝুঁকিপূর্ণ। এর মধ্যে সবচেয়ে খারাপ অবস্থা ধুনটের মাঠপাড়া ও পশ্চিম ভরনশাহী বেইলি সেতুর।

স্থানীয়রা জানান, সম্প্রতি পশ্চিম ভরনশাহী বেইলি সেতুর একটি পাটাতন দেবে গিয়ে তাতে ফাটল দেখা দিয়েছে। তারপরও এ সেতু দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে ট্রাক ও বাস চলাচল করছে। এতে পাটাতনটি খুলে পড়ে বড় ধরনের দূর্ঘটনার আশঙ্কা করা হচ্ছে।

ধুনট-শেরপুর সড়কে চলাচলকারী ট্রাকচালক আবুল কালাম জানান, এ সড়ক দিয়ে প্রতিদিন শত শত যাহবাহন চলাচল করে। অতিরিক্ত পাথরবোঝাই ট্রাকসহ ভারী যাহবাহন চলাচলের কারণে গুরুত্বপূর্ণ ধুনট-শেরপুর সড়কের পাঁচটি সেতুই ঝুকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। সবচেয়ে বেশি ঝুঁকিপূর্ণ পশ্চিম ভরনশাহী বেইলি সেতু।

বগুড়া সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আশরাফুজ্জামান বলেন, ‘অনেক বছর আগে থেকেই বেইলি সেতুর পাটাতন, ট্রানজাম ও স্টিল ট্রেকিংসহ অন্যান্য সরঞ্জাম সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। তাই জোড়াতালি দিয়েই ঝুঁকিপূর্ণ ব্রিজগুলো মেরামত করা হয়। পশ্চিম ভরনশাহী এলাকার বেইলি ব্রিজের ফাটল ধরা পাটাতন শিগগিরই মেরামত করা হবে।’

 

/এমএ/

x