রাসিকে লড়বেন ২১৭ প্রার্থী

রাজশাহী প্রতিনিধি ১৯:৫৩ , জুলাই ০৯ , ২০১৮

রাজশাহী সিটি করপোরেশন নির্বাচনরাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) নির্বাচনে শেষ দিনে সোমবার (৯ জুলাই) ছয় কাউন্সিলর প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন। এর আগে মেয়রসহ আরও তিনজন কাউন্সিলর প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেন। এতে করে নির্বাচনি ময়দানে পাঁচ মেয়র প্রার্থীসহ মোট ২১৭ জন প্রার্থী লড়াই করবেন। মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে তাদের জন্য প্রতীক বরাদ্দ করা হবে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রাজশাহী জেলা নির্বাচন অফিসার ও সহকারী রিটানিং কর্মকর্তা আতিয়ার রহমান বলেন, ‘মেয়র পদের প্রার্থী জাতীয় পার্টির ওয়াসিউর রহমান ওরফে দোলন এবং কাউন্সিলর পদে ৫ নম্বর ওয়ার্ডে খুরশিত আহমেদ, ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের মীর হানিফ মোহাম্মদ, শাহীন শেখ, ২১ নম্বর ওয়ার্ডের সোহেল রানা, ২২ নম্বর ওয়ার্ডের জাবেদুর রহমান, জাহিদুর রহমান, ২৮ নম্বর ওয়ার্ডে রজমান আলী ও ২৯ নম্বর ওয়ার্ডে আবু হানিফ টনি মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন।’

তিনি আরও জানান, ‘মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়, বাতিল ও প্রত্যাহারের সময় পার হওয়ার পর এখন মোট প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়ালো ২১৭ জন। এর মধ্যে মেয়র পদে আছেন পাঁচজন। এরা হলেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, বিএনপির মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল, ইসলামী আন্দোলনের শফিকুল ইসলাম, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির হাবিবুর রহমান ও স্বতন্ত্র মুরাদ মোর্শেদ। আর ৩০টি সাধারণ ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদে আছেন ১৬০ জন প্রার্থী। এছাড়া এসব ওয়ার্ডে সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদের প্রার্থী ৫২ জন।’

উল্লেখ, সিটি নির্বাচনে এবার ৫২ জন নারী কাউন্সিলর প্রার্থী হয়ে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছিলেন। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তারা সবাই জমাও দিয়েছিলেন। যাচাই-বাছাইয়ের সময় তাদের কারও প্রার্থিতা বাতিল হয়নি। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের সময়ও কেউ নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াননি।

এর আগে মেয়র পদে ছয় জন, সাধারণ কাউন্সিলর পদে ১৬৯ জন এবং নারী কাউন্সিলর পদে ৫২ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করে জমা দেন। তবে ১ ও ২ জুলাই মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের সময় এক মেয়র প্রার্থী ও তিন কাউন্সিলর প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়। এদের মধ্যে আপিল করে স্বতন্ত্র এক মেয়র প্রার্থী এবং দুই কাউন্সিলর প্রার্থী তাদের প্রার্থিতা ফিরে পান। বৈধ ছয় মেয়র প্রার্থীর মধ্যে জাতীয় পার্টির প্রার্থী ওয়াসিউর রহমান ওরফে দোলন নিজের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে আওয়ামী লীগের প্রার্থী এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনকে সমর্থন দেন।

গত ১৩ জুলাই রাজশাহী সিটি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। সেদিন থেকেই নির্বাচন কমিশন থেকে প্রার্থীদের মধ্যে মনোনয়নপত্র বিতরণ শুরু হয়। ২৮ জুলাই পর্যন্ত মনোনয়নপত্র বিতরণ ও জমা নেওয়া হয়। সোমবার বিকাল ৫টায় প্রার্থিতা প্রত্যাহারের সময় শেষ হয়ে যাওয়ায় মঙ্গলবার (১০ জুলাই) প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ করা হবে। এরপরই আনুষ্ঠানিক প্রচারণায় নামতে পারবেন প্রার্থীরা।

আগামী ২৮ জুলাই রাত ১২টা পর্যন্ত প্রচার-প্রচারণা চলবে। ভোটগ্রহণ করা হবে ৩০ জুলাই। এবার মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ১৮ হাজার ১৩৮ জন। এর মধ্যে পুরুষের সংখ্যা ১ লাখ ৫৬ হাজার ৮৫ জন। আর নারীর সংখ্যা ১ লাখ ৫৬ হাজার ৮৫ জন। ভোটকেন্দ্রের সংখ্যা ১৩৭টি থেকে বেড়ে ১৩৮টি হয়েছে। বর্ধিত ভোটকেন্দ্রটি হচ্ছে অনন্যা শিশু শিক্ষালয়। এটি মহানগরীর ২৪নং ওয়ার্ড এলাকায় অবস্থিত

আরও পড়ুন- প্রতীক বরাদ্দের অপেক্ষা, প্রচারের জন্য প্রস্তুত মেয়র পদপ্রার্থীরা

/এফএস/

x