বর্তমানে মোংলা বন্দর সব থেকে ভাল অবস্থায় আছে: হাবিবুন নাহার

বাগেরহাট প্রতিনিধি ০৮:৪৭ , জানুয়ারি ১৩ , ২০১৯

বন, পরিবেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের নবনিযুক্ত উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহার বলেছেন, ‘খুলনা বিভাগের অর্থনৈতিক অবস্থা নির্ভর করে মোংলা বন্দরের ওপর। কিন্তু ২০০১ সালে মোংলা বন্দরকে গলা টিপে হত্যা করা হয়েছে। ২০০৮ সালে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে বন্দরের উন্নয়ন করেছে। বর্তমানে মোংলা বন্দরে প্রতিদিন জাহাজ আসে। শুরুর থেকে এই পর্যন্ত বর্তমানে মোংলা বন্দর সব থেকে ভাল অবস্থায় আছে।’

শনিবার (১২ জানুয়ারি) বিকালে রামপাল উপজেলার গিলাতলা মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে বাসতলী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আয়োজনে সংবর্ধনা সভায় উপমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি আরও বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী সারা দেশের উন্নয়নের কথা চিন্তা করেন। সেই ধারাবাহিকতায় মোংলা ইপিজেডসহ দক্ষিণাঞ্চলের ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। অনেক চড়াই উৎরাই পার করে রামপাল কয়লাভিত্তিক তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের নির্মাণ কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। এ বিদ্যুৎকেন্দ্র উৎপাদনে গেলে মোংলা-রামপাল এলাকা গাজীপুরের মতো শিল্পাঞ্চল হবে। সেই সুবিধা আপনারাই ভোগ করবেন। এখানে হাজার হাজার লোকের কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। শুধু পুরুষ নয় এই অঞ্চলে নারীরাও অনেক কর্মসংস্থান পাবেন।’

সংবর্ধনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।

বাসতলী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু তালেবের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য দেন বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি অধ্যাপক মোল্যা আব্দুর রউফ, রামপাল উপজেলা চেয়ারম্যান শেখ মো. আবু সাইদ, আওয়ামী লীগ নেতা আবু হানিফ, জেলা তাঁতী লীগের সভাপতি তালুকদার আব্দুল বাকি, ইউপি চেয়ারম্যান ঝিলাম তালুকদার, ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মাদ আলী, জামিল হোসেন জামু, আওয়ামী লীগ নেতা শিকদার মুজিবুর রহমানসহ আরও অনেকে।

 

/এএইচ/

x