নতুন স্টার সিনেপ্লেক্সে তারার মেলা

বিনোদন রিপোর্ট ০২:৪৯ , অক্টোবর ২০ , ২০১৯

দেশীয় চলচ্চিত্রের স্বর্ণালি যুগের গান বাজলো একের পর এক। লালগালিচায় বিভিন্ন অঙ্গনের তারকারা পায়চারি করলেন। আরেক পাশে চলছে খানাপিনা। এরপর কাটা হলো কেক। সব মিলিয়ে ধুমধাম ব্যাপার।

রাজধানীর মহাখালীতে নবনির্মিত এসকেএস (সেনা কল্যাণ সংস্থা) টাওয়ারে শনিবার (১৯ অক্টোবর) সন্ধ্যায় জাঁকজমক আয়োজনে স্টার সিনেপ্লেক্সের ১৫ বছর পূর্তি উদযাপন করা হলো। গত ৮ অক্টোবর ১৬ বছরে পদার্পণ করেছে দেশের প্রথম মাল্টিপ্লেক্স সিনেমা হলটি। এ উপলক্ষে দর্শকদের জন্য নতুন মাল্টিপ্লেক্স চালু করা হলো।

রুপালি পর্দার তারকাদের নিয়েই কেক কেটেছেন স্টার সিনেপ্লেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাহবুব রহমান রুহেল। তার সঙ্গে ছিলেন ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খান, অভিনেতা ফেরদৌস, নিরব, সাইমন ও তারিক আনাম খান। এর আগে ফিতা কেটেছেন রুহেলের বাবা ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন। 

অতিথিদের রজনীগন্ধা ও গোলাপ ফুলে বরণ করার পর ‘ঐতিহ্যের বাংলা সিনেমা’ শীর্ষক পরিবেশনায় স্বর্ণালি যুগের গানের তালে ছিল ফ্যাশন শো। ‘চুপি চুপি বলো কেউ জেনে যাবে’, ‘নীল আকাশের নিচে আমি রাস্তা চলেছি একা’, ‘ওই দূর-দূরান্তে’ ইত্যাদি গান বাজানো হয়। অমর নায়ক সালমান শাহের ‘বাবা বলে ছেলে নাম করবে’ ও ‘ও আমার বন্ধু গো’ গান দুটিও ছিল। নতুন প্রজন্মের তারকা ও উঠতি মডেলরা এগুলোর তালে নেচেছেন। সেই সময়ের কালজয়ী ছবির পোস্টারের ছাপ দিয়ে সাজানো ব্লেজার পরে কয়েকজন চিত্রনায়ক এককাতারে দাঁড়ান।

বিশ্বরঙের থিম সং বাজানো হলে লালগালিচায় একসঙ্গে আসেন চিত্রনায়িকা রোজিনা, মডেল-অভিনেত্রী সাদিয়া ইসলাম মৌ, চিত্রনায়িকা নিপুণ, ‘আয়নাবাজি’ তারকা নাবিলা, রূপ বিশেষজ্ঞ কানিজ আলমাস খান ও উদ্যোক্তা বিপ্লব সাহাসহ অনেকে।

তারকাদের মধ্যে এসেছিলেন জাহিদ হাসান, পিয়া জান্নাতুল, শেহতাজ, ভাবনা, অনিমেষ আইচ, শম্পা রেজা, শর্মিলী আহমেদ, সালাহউদ্দিন লাভলু, মাজনুন মিজান, শিপন মিত্র, সাঞ্জ জন, কাজী আসিফ রহমান, তমা মির্জা, উপস্থাপক আনজাম মাসুদ, গীতিকার কবির বকুল, পরিচালক মোরশেদুল ইসলাম, আবু সাইয়ীদ, বুলবুল বিশ্বাস, নাট্যকার বৃন্দাবন দাস, ইউটিউবার সালমান মুক্তাদির। তাদের কেউ কেউ নতুন স্টার সিনেপ্লেক্সকে শুভকামনা জানিয়ে বোর্ডে কিছু কথা লেখেন। 

সবশেষে নতুন প্রেক্ষাগৃহগুলোতে হলিউডের নতুন দুই ছবি ‘মেলেফিসেন্ট টু: মিস্ট্রেস অব এভিল’ ও ‘জম্বিল্যান্ড: ডাবল ট্যাপ’ দেখানো হয় অতিথিদের।

২০ অক্টোবর থেকে দর্শকরা নতুন স্টার সিনেপ্লেক্সে ছবি দেখতে পারবেন। মোট তিনটি হল রয়েছে এখানে। নান্দনিক পরিবেশ, সর্বাধুনিক প্রযুক্তি-সংবলিত সাউন্ড সিস্টেম, জায়ান্ট স্ক্রিনসহ বিশ্বমানের সিনেমা হলের যাবতীয় সুযোগ-সুবিধা নিয়ে প্রেক্ষাগৃহগুলো নির্মিত হয়েছে। তিন ক্যাটাগরির আসন বিন্যাস থাকছে এতে। রেগুলার চেয়ারের পাশাপাশি নতুন সংযোজন হয়েছে লাউঞ্জার ও সেমি রিক্লাইনার বিভাগ।



এসকেএস টাওয়ারে খুললো স্টার সিনেপ্লেক্সের তৃতীয় শাখা। এর আগে ধানমন্ডির সীমান্ত সম্ভারে দ্বিতীয় শাখা চালু হয়। দেশের সিনেমাপ্রেমী দর্শকদের বিশ্বমানের প্রেক্ষাগৃহ উপহার দিতে ২০০৪ সালের ৮ অক্টোবর বসুন্ধরা সিটি শপিং মলে যাত্রা শুরু করে স্টার সিনেপ্লেক্স।

/জেএইচ/এমএম/এমওএফ/

x