ঈদ উপলক্ষে জমকালো ফ্যাশন শো

লাইফস্টাইল রিপোর্ট ১২:৩০ , মে ১৭ , ২০১৮

ঈদকে সামনে রেখে জমকালো এক ফ্যাশন শোয়ের মাধ্যমে ফ্যাশন হাউস অঞ্জন’স প্রদর্শন করলো তাদের বিশেষ কালেকশন। ১৫ মে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এই আয়োজনে  ট্র্যাডিশনাল, এথনিক ও পাশ্চাত্য পোশাক র‌্যাম্পে প্রদর্শিত হয়।  একই সঙ্গে অঞ্জন’স এর দুটি নতুন কো ব্র্যান্ডেরও ঘোষণা দেন প্রতিষ্ঠানটির শীর্ষ নির্বাহী শাহীন আহম্মেদ।তিনি জানান, এথনিক ও ট্র্যাডিশনাল ফিউশন নিয়ে নীল রঙের বিশেষায়িত পোশাক লেবেল ‘আর্ট অব ব্লু’ এবং পাশ্চাত্য ঘরানার পোশাক লেবেল ‘মারজিন’ নামের দুটি নতুন ব্র্যান্ড কাজ করবে নান্দনিক রুচি এবং সর্বশেষ ট্রেন্ড নিয়ে।

শুরুতেই ডিজাইনারদের নতুন ঈদ সংগ্রহ নিয়ে শুরু হয় র‌্যাম্প। পোশাক বৈচিত্র্যতা এবং ডিজাইন ভিন্নতায় শাড়ি-পাঞ্জাবি, সালোয়ার কামিজ- পাঞ্জাবি এবং শার্ট-টপস নিয়ে তিনটি পৃথক কিউতে অংশ নেন মডেলরা। ঈদ সংগ্রহে জামদানি, ইসলামিক, জিওমেট্রিক ও ফ্লোরাল মোটিফগুলোই প্রাধান্য পেয়েছে পোশাকে। গলা, হাতা এবং পোশাকের প্যার্টার্নে নিরীক্ষাধর্মী কাজগুলো সমকালানী ট্রেন্ড অনুসরণে করা হয়েছে।

ডিজাইনারদের নিজস্ব উদ্ভাবনীবোধ এবং ফ্যাশন চিন্তা সমন্বিত হয়ে তারুণ্য নির্ভর পোশাকের ক্যানভাস হচ্ছে ‘মার্জিন’। নতুন যাত্রা শুরু হওয়া এই ব্র্যান্ডের দুটি পৃথক কিউতে র‌্যাম্পের প্রথমটিতে প্রদর্শিত হয় মেয়েদের কামিজ, ছেলেদের ক্যাজুয়াল শার্ট ও কটন প্যান্ট। পাশ্চাত্য কাটের সাথে দেশীয় ফিউশন নিয়ে মেয়েদের টপস, পালাজ্জো, জিন্স এবং ছেলেদের টি শার্ট ও ডিজাইন বৈচিত্র্যের  স্টেচ ফেব্রিকে তৈরি জিন্স নিয়ে হয় আরও একটি ফ্যাশন কিউ।

ট্র্যাডিশনাল এবং পাশ্চাত্য পোশাকের ৫টি কিউ শেষে র‌্যাম্পে মডেলেরা উপস্থিত হন অন্য এক আবহে। নীলকেন্দ্রিক বিষয় বিন্যাসে প্রাচ্য আর পাশ্চাত্য যুগপৎ ধরা দেয় প্রতিটি পোশাকের ক্যানভাসে। পোশাকে নীল যেন বেদনার নয়, ভালোবাসার রং হয়েই ফুটে উঠেছিল মডেলদের বসনে। ইন্ডিগো ডাই, ব্লক প্রিন্ট, জিওমেট্রিক মোটিফে শাড়ি- পাঞ্জাবির ফিউশন এবং সালোয়ার-কামিজ ও শার্ট নিয়ে দুটি পৃথক কিউ হয়। নীল থিমে উৎসবের এসব পোশাক নিয়ে হাজির হয় নতুন ব্র্যান্ড ‘আর্ট অব ব্লু।’

সবশেষে গয়না নিয়ে হাজির হন অঞ্জন’সের চিফ ডিজাইনার এবং কনক দ্যা জুয়েলারি প্যালেস এর প্রধান নির্বাহী লায়লা খায়ের কনক। গর্জাস লুকে এবং ট্র্যাডিশনাল উপস্থাপনায় সিলভার এবং গোল্ড প্লেটেট জুয়েলারি নিয়ে ১২ জন মডেল পৃথক দুটি ফ্যাশন কিউতে অংশ নেন। রূপা, কপারসহ বিভিন্ন মেটাল,  স্টোন ও পার্ল দিয়ে দৃষ্টিনন্দন গয়নাগুলো ডিজাইন করেছেন কনক নিজেই।

পুরো আয়োজনের কোরিওগ্রাফি করেছেন আজরা মাহমুদ। মেকওভারের দায়িত্বে ছিল পারসোনা।
অনুষ্ঠান শেষে গণমাধ্যমকর্মীদের জন্য ছিল বিশেষ র‍্যাফেল ড্রয়ের আয়োজন। পুরস্কার হিসেবে ছিল কাঠমান্ডু, কলকাতা ও কক্সবাজারের বিমান টিকিট।

ছবি: রাফিয়া আহমেদ

/এনএ/

x