পাঁচ শতাধিক শিশুর হাতে ঈদ উপহার

লাইফস্টাইল রিপোর্ট ১৫:৫৪ , জুন ১৩ , ২০১৮

ঈদের আনন্দ তো আসলে শিশুদের জন্যই। শপিং সেন্টারগুলোতে শিশুদের পোশাকের দোকানে দেখা যায় উপচেপড়া ভিড়। নতুন পোশাক ছাড়া শিশুদের কি ঈদ হয়! শুধু তাই নয়, পোশাক কিনেই লুকিয়ে রাখার চেষ্টাও করে অনেক শিশুই। কেউ দেখলে পুরনো হয়ে যাবে। কিন্তু আমাদের চারপাশে এমন অনেক সুবিধাবঞ্চিত শিশু আছে যাদের ঈদ কাটে জরাজীর্ণ পুরাতন পোশাক আর অনাহারে। আমরা কত জনই বা তাদের নিয়ে ভাবি না।

তবে  সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের কথা চিন্তা করে প্রতিবছর তাদের কাছে ঈদের উপহার পৌঁছে দেয় স্বেচ্ছাসেবি সংগঠন সম্ভাবনা।

পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে নগরীর ৫০০ সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের মধ্যে ঈদের নতুন পোশাক বিতরণ করে স্বেচ্ছাসেবি সংগঠন সম্ভাবনা। ১০ জুন ধানমণ্ডি রবীন্দ্র সরোবর থেকে শুরু হয়েছে ‘পুষ্পকলি ঈদ উৎসব-২০১৮’। চলবে ১৩ জুন পর্যন্ত। এ বছর ঢাকার ছয়টি অঞ্চলের প্রায় পাঁচশতাধিক সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের নিয়ে পালন করা হচ্ছে এ উৎসব।

উৎসবে সম্ভাবনা পরিচালিত পুষ্পকলি স্কুলের ধানমণ্ডি, মিরপুর ও কালশি শাখার ৩০০ সুবিধা বঞ্চিত শিশুসহ বিমান বন্দর রেলস্টেশন, কড়াইল ও তেজগাঁও রেলস্টেশন এই ছয়টি স্পটের প্রায় পাঁচ শতাধিক সুবিধা বঞ্চিত শিশুকে ঈদের পোশাক, সেমাই, চিনি, দুধ, পোলাউ এর চাল ও কিসমিস প্রদান করা হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালে ১১ ফেব্রুয়ারি মাসে প্রতিষ্ঠিত হয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সম্ভাবনা। ‘বঞ্চিত শিশু ও আগামীর সম্ভাবনা’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে পথশিশুদের নিয়ে গড়ে তুলতে চায় সম্ভাবনার এক বাংলাদেশ। এ লক্ষ্যে সংগঠনটি পথশিশুদের জন্য রাজধানীর মিরপুরের শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়াম, ধানমন্ডির রবীন্দ্র সরোবরে পুস্পকলি স্কুল এর মাধ্যমে চালাচ্ছে তাদের অনানুষ্ঠানিক শিক্ষা কার্যক্রম। যেখানে শিশুদের সাধারন শিক্ষা কর্যক্রমের পাশাপাশি নৈতিক ও কর্মমুখী শিক্ষা প্রদান করা হয়। এছাড়া এবছর কালশির গুদারঘাট বস্তিতে ৬০ জন সুবিধা বঞ্চিত শিশু নিয়ে চলছে পুস্পকলি স্কুলের আনুষ্ঠানিক শিক্ষা কার্যক্রম। পুষ্পকলি স্কুলের তিনটি শাখায় প্রায় ৩০০ পথশিশুর পাঠদান করা হয়। এছাড়া সম্পূরক শিক্ষা কার্যক্রমের অংশ হিসেবে ১০ শিক্ষার্থীর লেখাপড়া খরচ, শিক্ষা উপকরণ এবং টিউশন প্রদান করা হয়। যেহেতু পরিবারের চাপেই শিশুরা স্কুল ছেড়ে কাজে চলে যায় এবং ভিক্ষা বৃত্তিতে নিয়োজিত হয় তাই সুবিধা বঞ্চিত শিশুর মায়েদের সাবলম্বী হিসেবে গড়ে তুলতে ‘আনন্দিত নারী’ নামে কর্মসূচি পরিচালনা করছে সংগঠনটি।

/এফএএন/

x