যেন এক কুহক সিম্ফনি

রাজু আহমেদ মামুন ১৪:৫৭ , মে ২৮ , ২০১৯

পূর্বরাগ

প্রান্তহীন, কী প্রলয় হয়ে বসেছিলাম

 

নিউরন সিন্যাপসে মুহুর্মুহু বিজলি চমক

যেন সমস্ত এক্সনগুলো ছিঁড়ে-পুড়ে যাবে যাবে!

 

মাইটোকন্ড্রিয়াগুলো জ্বলছিলো দ্বিগুণ উত্তাপে

আর আগুনের স্রোত তরল গান হয়ে

নেমে আসছিলো ক্রোমোজোম কারখানা থেকে

 

পরমাণু বাঁধনে তখন ইলেক্ট্রন ঝড়!

 

প্রান্তহীন, কী প্রলয় হয়ে বসে ছিলাম

যখন তোমার ঠোঁট—এগোচ্ছিলো...

 

মূক প্রহরের ডায়রি

অনন্তের অন্ত থেকে শুরু হয়েছিল

তোমার গান। সে সব অনুভূতি,

যা অবহেলায়—অভিমান হয়ে ওষ্ঠাগত ছিল

আর তা সব রূপসী ধ্বনিমালা হয়ে

ফুটছিলো ইথারে ইথারে

 

যেন এক কুহক সিম্ফনি

ভাসিয়ে নিচ্ছিল সমস্ত তারাপুঞ্জ

 

আর আমি এক স্থির ব্লাকহোল

শুষে নিচ্ছিলাম ইলেকট্রন ঝড়

 

আমাকে কি চাইছিলে তুমি—

বিস্ফোরণ উজ্জ্বল সুপার নোভার মতো!

 

যদিও এসব সংবৃত বিষয়, তবু

ক্ষমা করো, সে বধির দীর্ঘ অন্ধকার ছাড়া

আমার বিবৃত হওয়ার কিছুই ছিল না তখন।

//জেডএস//

x