কোটি টাকার ইয়াবাসহ রাজধানীতে গ্রেফতার তিন

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট ২০:০১ , অক্টোবর ১৩ , ২০১৭

রাজধানীর বিভিন্নস্থানে অভিযান চালিয়ে প্রায় কোটি টাকা মূল্যের ৩০ হাজার পিস ইয়াবাসহ তিন সিন্ডিকেট সদস্যকে গ্রেফতার করেছে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর। গ্রেফতারকৃতরা হলেন- চট্টগ্রাম চন্দনাইশের মো. মহিউদ্দিন ইসলাম (২৪), নোয়াখালীর সুধারামের মো. মোবারক হোসেন বাবু (২৯) ও ঝালকাঠির দুলাল চন্দ্র শীল (৪৮)।

ইয়াবাসহ গ্রেফতার তিনশুক্রবার মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান ঢাকা মেট্রো উপ-অঞ্চলের উপপরিচালক মুকুল জ্যোতি চাকমা। তিনি বলেন, ‘১২ অক্টোবর দুপুর ২টা থেকে রাত সাড়ে ১২টা পর্যন্ত রাজধানীর শনির আখড়া, গেন্ডারিয়া, বংশালের এমএস মার্কেটে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।’

মুকুল জ্যোতি চাকমা বলেন, ‘গত ৯ জুলাই এলিফ্যান্ট রোড, কলাবাগান ও পশ্চিম রাজাবাজার থেকে ৫০ হাজার পিস ইয়াবাসহ একটি সিন্ডিকেট আটক করা হয়। সেই সূত্র ধরে গত তিন মাস ধরে গোয়েন্দাদের নজরদারি ছিল। গতকাল হানিফ ফ্লাইওভারের শনির আখড়া প্রান্ত থেকে ইয়াবা সরবরাহের সময় পাঁচ হাজার পিস ইয়াবাসহ মহিউদ্দিনকে গ্রেফতার করা হয়। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে বংশালের এমএস মার্কেটের তৃতীয় তলা থেকে মাদক ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিনের গোডাউন থেকে ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার ও ইয়াবা ব্যবসায় সহায়তার অভিযোগে মার্কেটের দারোয়ান দুলাল চন্দ্র শীলকে গ্রেফতার করা হয়। তবে মূল হোতা নাসির উদ্দিনকে আটক করা সম্ভব হয়নি।’

উদ্ধার করা ইয়াবাপরবর্তীতে গেন্ডারিয়ার দয়াগঞ্জে অভিযান চালিয়ে পাঁচ হাজার পিস ইয়াবাসহ মোবারক হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়।

মূলহোতা নাসির উদ্দিন সম্পর্কে মুকুল জ্যোতি চাকমা বলেন, ‘সে এলিফ্যান্ট রোডে আটক ব্যবসায়ী ও এবার গ্রেফতার হওয়া ব্যবসায়ীদের প্রধান। তার পরিচয় সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া গেছে। তবে তার লোকেশন এখনও পাওয়া যায়নি। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।’

এদিকে গ্রেফতারকৃত ও পলাতকদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন, ১৯৯০ এর ধারায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের পরিদর্শক সুমনুর রহমান ও মো. হেলাল উদ্দিন বাদি হয়ে দু’টি মামলা দায়ের করেছেন।

Advertisement

Advertisement

Pran-RFL ad on bangla Tribune x