এরশাদের জোটে ‘বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস’

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট ২২:০৫ , আগস্ট ১০ , ২০১৮

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদদীর্ঘদিন ধরেই ইসলাম ধর্মভিত্তিক দলগুলোকে নিয়ে জোট গঠনের আলোচনা চলছিল। তবে ইসলামি কোনও দলের জোটে না গিয়ে শায়খুল হাদিস আল্লামা আজিজুল হক প্রতিষ্ঠিত ‘বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস’ যাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের জোটে। এ দলের চেয়ারম্যান হলেন মাওলানা হাবিবুর রহমান ও মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক।
জানা গেছে, জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে জাতীয় পার্টির সঙ্গে নির্বাচনী সমঝোতা হয়েছে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের। শনিবার (১১ আগস্ট) বেলা ১১টায় রাজধানীর ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স মিলনায়তনে নির্বাচনি সমঝোতা উপলক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে। সংবাদ সম্মেলনে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান, সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ কথা বলবেন।
সূত্র জানায়, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের নেতারা জাপার বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছেন। একই সঙ্গে অন্যান্য ইসলাম ধর্মভিত্তিক দলগুলোকে জাতীয় পার্টির জোটে যুক্ত করতে তৎপরতা চালাচ্ছেন। বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের প্রতিষ্ঠাতা প্রয়াত আল্লামা আজিজুল হক বিএনপি নেতৃত্বাধীন চারদলীয় জোটের প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য ছিলেন। দলটির আমির মাওলানা হাবিবুর রহমান ও মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হকসহ একাধিক নেতা হেফাজত ইসলামের নেতৃত্বেও রয়েছেন।
জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের ডেপুটি প্রেস সেক্রেটারি খন্দকার দেলোয়ার জালালী বলেন, ‘জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে জাতীয় পার্টির সঙ্গে নির্বাচনি সমঝোতা হয়েছে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের। এ বিষয়ে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ শনিবার সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিস্তারিত জানাবেন।’
ইসলামী দলের জোট প্রসঙ্গে দলটির মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘ইসলামি দলগুলো নিয়ে জোট গঠনের জন্য অনেক চেষ্টা করেছি, কিন্তু সম্ভব হয়নি। সবার মধ্যে ঐক্য হয়নি।’ নতুন জোটে কতটা সুফল আসবে এমন প্রশ্নের জবাবে মাহফুজুল হক বলেন, ‘মাত্র জোটে অন্তর্ভুক্ত হচ্ছি, লাভ-ক্ষতির বিষয়ে বলার সময় এখনও আসেনি।’

অারও পড়ুন: আ.লীগের আনুকূল্যের আশায় ইসলামি দলগুলোর নির্বাচনি প্রক্রিয়া শুরু

/সিএ/ওআর/

x